শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৩:৩৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
মাইজভান্ডার শরীফ শাহী ময়দানে পবিত্র ঈদ উল ফিতর এর জামাতে অংশ নেন হযরত সৈয়দ হাসান মাইজভান্ডারী (মাঃ) মাইজভান্ডারি সূর্যগিরি আশ্রম শাখার উদ্যোগে ঈদ বস্ত্র-সামগ্রী প্রদান মাইজভান্ডার শরীফ গাউসিয়া হক মনজিলে বাবা ভাণ্ডারী-র চাহরাম শরীফ সম্পন্নঃ খুলশী যুব উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে এতিম শিশু ও পথচারী রোজাদারদের মাঝে ইফতার বিতরণ লাইলাতুল কদর মাহফিলে গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারীর রওজা-এ-পাক জিয়ারতরত শাহসুফি সৈয়দ সহিদুল হক মাইজভাণ্ডারী কাঞ্চনা পল্লী কল্যাণ সমিতির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত। নাজিরহাটে হক কমিটির ঈদ উপহার বিতরণ বাবা ভান্ডারীর ওরশ শরীফের আখেরি মোনাজাতে সৈয়দ মোহাম্মদ হাসান মাইজভাণ্ডারী গাউছিয়া হক মনজিলে বাবা ভান্ডারীর ৮৮তম ওরশ উদযাপন, ফটিকছড়ি মাধ্যমিক সহকারী শিক্ষক কল্যাণ পরিষদের মত বিনিময় সভা ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত,
নোটিশ :

শোকর – এ মওলা মঞ্জিল – এর ১০ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী সম্পন্ন

শোকর – এ মওলা মঞ্জিল ১০ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষ্যে জিকরে শাহানশাহ, মাইজভাণ্ডারী দর্শন শীর্ষক আলোচনা ও মিলাদ মাহফিল বিশিষ্ট মাইজভাণ্ডারী লেখক ও গবেষক, মাইজভাণ্ডারী গাউসিয়া হক কমিটি বাংলাদেশ, কেন্দ্রীয় পর্ষদের সদস্য ও জ্যোতি ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান উপদেষ্টা মোহাম্মদ শাহেদ আলী চৌধুরী মাইজভাণ্ডারী’র সভাপতিত্বে ও জ্যোতি ফোরামের সাধারণ সম্পাদক এস এম নেওয়াজ শাহরিয়ার আসিফের সঞ্চালনায় হারুয়ালছড়ির পাটিয়ালছড়িস্থ শোকর-এ মওলা মঞ্জিল মাঠ প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত হয়।

এতে সম্মানিত আলোচক হিসেবে আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের আরবি বিভাগের অধ্যাপক ড. মাওলানা মোহাম্মদ জাফর উল্লাহ এবং মাদরাসা – এ – গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারীর আরবি প্রভাষক মাওলানা মোহাম্মদ মুজিবুল হক।

উক্ত মাহফিলে সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাহিত্যিক, লেখক ও গবেষক, জাতীয় মানবাধিকার সোসাইটির চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম তামিজী এবং জাগ্রত ব্যবসায়ী ও জনতা বাংলাদেশ – এর প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান শিহাব রিফাত আলম।

কুরআন তেলাওয়াত, নাতে মোস্তাফা (দঃ) ও মাইজভাণ্ডারী কালাম পরিবেশনের পর সভায় স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন শোকর – এ মওলা মঞ্জিলের নির্বাহী সদস্য মুহাম্মদ সজীবুল হাসান চৌধুরী। শুভেচ্ছা বক্তব্য প্রদান করেন শোকর – এ মওলা মঞ্জিলের নির্বাহী সদস্য, বিশিষ্ট চিকিৎসক পঞ্চানন দাশগুপ্ত ও জ্যোতি ফোরামের সভাপতি মুহাম্মদ জয়নুল আবেদীন তাওরাত।

সভায় বক্তারা বলেন – “মানুষকে প্রকৃত মানুষ হিসেবে গড়ে তোলার জন্য গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারী (কঃ) কেবলা কাবার এই মিশন তথা মাইজভাণ্ডারী ত্বরিকা।
চিশতিয়া, সোহরাওয়ার্দীয়া সহ প্রমুখ ত্বরিকার যেমন কাদেরীয়া ত্বরিকা উৎস হলেও নিজস্ব বৈশিষ্ট্যের কারণে স্বতন্ত্র ত্বরিকা হয়েছে তেমনিভাবে এদেশের কৃষ্টি – কালচার ও মানুষের প্রয়োজনে স্বতন্ত্র ত্বরিকা হিসেবে মাইজভাণ্ডারী ত্বরিকা বাংলার জমিনে প্রতিষ্টিত হয়েছে।”
বক্তারা আরো বলেন,”মানবতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত দেখতে চাইলে মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফ তথা মওলা হুজুর মাইজভাণ্ডারী (মঃজিঃআঃ) কেবলা কাবার শরণাপন্ন হতে হবে।”

সভাপতি উনার বক্তব্যে বলেন, “আল্লাহর অলিরা হচ্ছেন ঈমানের প্রতীক, মানুষের বিশ্বাসের আশ্রয়স্থল।”
তিনি আরো বলেন,”মাইজভাণ্ডারী দরবারে যাওয়া মানে অনুভূতির আড়াল উন্মুক্ত করে উপলব্ধি শক্তি জাগ্রত করা।

উক্ত মাহফিলে ২৭ জন কৃতি শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা, ০৮ জন অস্বচ্ছল মেধাবী শিক্ষার্থীকে শিক্ষাবৃত্তি প্রদান করা হয়।

মিলাদ মাহফিল পরিচালনা করেন মাহফিল পরিচালনা কমিটির আহবায়ক সৈয়দ শফিউল আজিম সুমন।

পরবর্তীতে বিশিষ্ট মাইজভাণ্ডারী কাওয়াল মোহাম্মদ হান্নান হোসাইনী ও মোহাম্মদ আবু তালুকদার হাবিবের পরিবেশনায় মাইজভাণ্ডারী সেমা ও কাওয়ালি মাহফিল সম্পন্ন হয়।

দেশ ও মানুষের কল্যাণে আখেরি মোনাজাতের মাধ্যমে মাহফিলের সমাপ্তি হয়।



ফেসবুকে আমরা

ফেসবুকে আমরা