সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১০:১০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
মাইজভান্ডারী একাডেমির আজীবন সদস্য মোঃ ওমর ফারুক এর শ্রদ্ধেয় পিতা ইন্তেকাল করেছেন, হজরত খাজা ওচমান হারুনী ( রাঃ) র ওফাত বার্ষিকী উদযাপিত উসুলে সাবআ সপ্ত পদ্ধতি জগতের সামনে তুলে ধরার যোগ্যতা, সক্ষমতা ও তৌফিক কামনা করেন হযরত সৈয়দ মোহাম্মদ হাসান মাইজভান্ডারী মাইজভান্ডার শরীফ শাহী ময়দানে পবিত্র ঈদ উল ফিতর এর জামাতে অংশ নেন হযরত সৈয়দ হাসান মাইজভান্ডারী (মাঃ) মাইজভান্ডারি সূর্যগিরি আশ্রম শাখার উদ্যোগে ঈদ বস্ত্র-সামগ্রী প্রদান মাইজভান্ডার শরীফ গাউসিয়া হক মনজিলে বাবা ভাণ্ডারী-র চাহরাম শরীফ সম্পন্নঃ খুলশী যুব উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে এতিম শিশু ও পথচারী রোজাদারদের মাঝে ইফতার বিতরণ লাইলাতুল কদর মাহফিলে গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারীর রওজা-এ-পাক জিয়ারতরত শাহসুফি সৈয়দ সহিদুল হক মাইজভাণ্ডারী কাঞ্চনা পল্লী কল্যাণ সমিতির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত। নাজিরহাটে হক কমিটির ঈদ উপহার বিতরণ
নোটিশ :

মুজিব আদর্শের অন্যতম রাজপথ কাঁপানোর আরেক নাম মামুনুর রশীদ মামুন,

রাজপথ আর কারাগার থেকে বিকশিত আওয়ামীলীগের দুঃসময়ে নেতৃত্ব চট্রলবীর এবিএম মহিউদ্দীন চৌধুরীর ডানহস্তখ্যাত পলিট্যাকনিক্যাল ছাত্রলীগের প্রতিষ্টাতা ছাত্রলীগের সাবেক সাঃসম্পাদক, ওমরগনি এম.ই.এস. বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্র সংসদের সাবেক জিএস, চট্রগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক সহ- সভাপতি, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য, চট্রগ্রাম মহানগর আওয়ামীলীগের সদস্য, সাবেক কমিশনার আলহাজ্ব মামুনুর রশীদ মামুন বলেন আমরা যখন ছাত্রলীগ করতাম তখন সিনিয়রদের খুব সম্মান করতাম আর দলকে ও নেতাকে খুব ভালবাসতাম,আমি ছিলাম বঙ্গবন্ধু আদর্শের নিবেদিত প্রাণ এ বি এম মহিউদ্দীন চৌধুরীর একজন ক্ষুদ্র কর্মী|তখনকার সময় ছিল দলের দুঃসময়, সে সময় আমরা প্রতি রাতে ঘরে ঘুমোতে পারিনি|হয়তো আজ শুনতে একদম সহজ মনে হবে,কিন্তু সে সময় যারা কষ্ট করেছে তাদের মধ্যে আমি একজন,আজও সেই কষ্ট নিয়ে শারীরিক ভাবে অসুস্থতা ভোগ করছি,তাই বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৩০ তম সম্মেলনের নব কমিটিতে যারা আসবে তাদের বলব বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও জননেত্রী শেখ হাসিনা যে ডিজিটাল বাংলাদেশের স্বপ্ন তিনি বাস্তবায়ন করেছেন সেই সফলতাকে ধরে রাখার জন্য সৎ ও বলিষ্ঠ রাজনীতি করতে হবে|সিটি কলেজের সাবেক ছাত্রনেতা জিয়াউল কচি বলেন ১৯৮৮ সালে আমি ছিলাম মেট্রিক পরীক্ষার্থী তখন থেকে মামুন রশিদ মামুন ভাই আমাকেও আমার মত অনেক ছাত্রলীগ কর্মীকে আপন ভাইয়ের মত সম্বোধন করত|দুঃসময়ের এই নেতা দলের জন্য খুবই প্রয়োজন,কারণ পদ পদবী বাণিজ্যে এই সাবেক ছাত্রলীগের ত্যাগী নেতাদের আমরা হারাতে বসেছি|তখনকার সময়ে চট্টগ্রাম মহানগর ৪১টি ওয়ার্ডের নেতাকর্মীকে একত্রিত করা সহজ বিষয় ছিল না|



ফেসবুকে আমরা

ফেসবুকে আমরা